✱ শিক্ষাসফরে যাওয়ার অনুমতি ও আর্থিক সাহায্যের আবেদন জানিয়ে অধ্যক্ষের নিকট একটি আবেদনপত্র লেখ।

✱ অথবা, কক্সবাজার সমুদ্রসৈকতে শিক্ষাসফরে যাওয়ার জন্য অনুমতি চেয়ে অধ্যক্ষের কাছে একটি আবেদন কর। 

✱ অথবা, শিক্ষাসফরে প্রেরণের আবেদন জানিয়ে কলেজ অধ্যক্ষের কাছে একটি দরখাস্ত দাও।

✱ অথবা, শিক্ষাসফরে যাওয়ার অনুমতি চেয়ে অধ্যক্ষের নিকট একখানা আবেদনপত্র লেখ।

১০ জানুয়ারি ২০১

বরাবর 

অধ্যক্ষ চট্টগ্রাম সরকারি মহিলা কলেজ 

নাসিরাবাদ, চট্টগ্রাম। 

বিষয় : শিক্ষাসফরে যাওয়ার জন্য আবেদন। 

মহােদয়, 

সম্মান প্রদর্শনপূর্বক সবিনয় নিবেদন এই যে, আমরা আপনার কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্র-ছাত্রীবৃন্দ। আগামী মাসের প্রথম সপ্তাহে আমরা শিক্ষাসফরে যাওয়ার ইচ্ছা পােষণ করছি। শিক্ষার সাথে শিক্ষাসফরের গুরুত্ব ওতপ্রােতভাবে জড়িত, তাই শিক্ষার্থীদের জন্য শিক্ষাসফরের প্রয়ােজনীয়তা অপরিসীম। এর মাধ্যমে আমরা নতুন নতুন স্থান পরিদর্শনের সঙ্গে সঙ্গে বাস্তব অভিজ্ঞতা অর্জন করতে সক্ষম হব। শুধু তাই নয়, এর ফলে শিক্ষামূলক অনেক গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে আমরা জ্ঞান লাভ করার সুযােগ পাব। প্রকৃতপক্ষে, শ্রেণিকক্ষের সীমাবদ্ধ পাঠ্যসূচির বাইরে ব্যাবহারিক জীবনে জ্ঞানার্জনের লক্ষ্যে শিক্ষাসফর আমাদের জন্য অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ। আমরা শিক্ষাসফরে কুয়াকাটা যাওয়ার জন্য আগ্রহ প্রকাশ করছি। সমুদ্রসৈকতে সূর্যোদয় ও সূর্যাস্তের দৃশ্য উপভােগ করার সঙ্গে সঙ্গে সমুদ্রের বিভিন্ন মৎস্যশ্রেণিভুক্ত প্রাণী ও সমুদ্রতীরবর্তী বনাঞ্চলের সঙ্গে পরিচিত হতে চাই। শিক্ষাসফরে আমরা তিন দিন কাটাব বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এ তিন দিনে আমাদের পঞ্চাশ জন ছাত্রছাত্রীর প্রায় দেড় লক্ষ টাকা খরচ হবে। সম্পূর্ণ টাকা আমাদের পক্ষে বহন করা সম্ভব নয়। আপনার অনুমতি পেলে আমরা এ টাকার অর্ধেক বহন করতে . পারব বলে আশা পােষণ করছি। এ ব্যাপারে আপনার সাহায্য ও সহানুভূতি আমাদের একান্তভাবে কাম্য।

অতএব মহােদয় সমীপে বিনীত প্রার্থনা, শিক্ষাসফরের গুরুত্ব ও প্রয়ােজনীয়তা উপলব্ধি করে আমাদের শিক্ষাসফরে যাওয়ার। অনুমতি ও প্রয়ােজনীয় অর্থ বরাদ্দ করলে আমরা বিশেষভাবে বাধিত হব।

নিবেদক 

একাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থীদের পক্ষে 

মিনহা সিদ্দিকা

চট্টগ্রাম সরকারি মহিলা কলেজ 

নাসিরাবাদ, চট্টগ্রাম।

Rate this post